কিছু সাংবাদিক অদ্ভুত প্রশ্ন করে অ্যাটেনশন নেওয়ার জন্য: বুবলী

2
Spread the love


বিনোদন ডেস্ক

নাম না উল্লেখ করে কিছু ‘সাংবাদিককে’ একহাত নিলেন ঢাকাই সিনেমার নায়িকা শবনম বুবলী। সেই সাংবাদিকদের ‘হলুদ সাংবাদিক’ অভিহিত করে ‘বসগিরি’ সিনেমার এই নায়িকা বলেছেন, তারা যেকোনো প্রোগ্রামে অদ্ভুত রকমের প্রশ্ন করে যেটার কোনো ভিত্তি থাকে না। এ ধরনের প্রশ্ন করে তাদের নিজেদের দিকে অ্যাটেনশন নেওয়ার জন্য, যেন সে ভাইরাল হয়ে যায়। এগুলো খুব ভালো প্র্যাকটিস!

মঙ্গলবার একটি টেলিভিশনে দেওয়া সাক্ষাৎকারে বুবলী এসব কথা বলেন।

নায়িকা বলেন, হলুদ সাংবাদিকরা শিল্পীদের সত্তাটাকে নানাভাবে আক্রমণ করতে চায়। ব্যক্তিগত কাউকে খুশি করার জন্য যেকোনো ধরনের মিথ্যা নিউজ করে। এ ধরনের সাংবাদিক দিন দিন বেড়ে চলেছে। এদের কারণে অনেকেই সাংবাদিকতা পেশাটাকে প্রশ্নবিদ্ধ করে। যারা সাংবাদিকতা ইথিক্স মেনে চলে তাদের খেয়াল রাখতে হবে যেন এই পেশাতে হলুদ সাংবাদিক প্রশ্রয় না পায়।

ছেলে শেহজাদের সঙ্গে ঈদ কেমন কাটল- এ প্রশ্নের জবাবে বুবলী বলেন, আলহামদুলিল্লাহ ভীষণ ভালো। সন্তানের সঙ্গে ঈদের এই সুন্দর সময়গুলো সারাজীবন বেঁচে থাকে। আমার কাছে শেহজাদের সঙ্গে কাটানো প্রত্যেকটা মুহূর্ত ঈদের আনন্দের মতো। আমি যখন এমনিতেও বাসায় হয়ত নামাজ পড়ি সে সময় শেহজাদ আমার কাঁধে-পিঠে উঠে যায়। এমনকি নিজে নিজে জায়নামাজ নিয়ে নামাজ পড়ার চেষ্টা করছে।

উল্লেখ্য, নায়িকা বুবলীর কর্মজীবন শুরু সংবাদ পাঠ দিয়ে। দেশের একটি বেসরকারি টেলিভিশন চ্যানেলে ২০১৩ সালে সংবাদ পাঠ শুরু করেন তিনি। ২০১৬ সালে ‘বসগিরি’ সিনেমার মাধ্যমে ঢাকাই চলচ্চিত্রে পা রাখেন বুবলী। এরপর একে একে ভক্তদের উপহার দেন ‘রংবাজ’, ‘অহংকার’, ‘সুপার হিরো সীমা’, ‘ক্যাপ্টেন খান’ সিনেমা। এবার ঈদুল আজহায় মুক্তি পেয়েছে তার ‘রিভেঞ্জ’ সিনেমা। এটিতে চিত্রনায়ক জিয়াউল রোশানের বিপরীতে অভিনয় করেছেন বুবলী।