শিশু অপহরণ মামলার আসামি রুবিনার আদালতে স্বীকারোক্তি

0
Spread the love

স্টাফ রিপোর্টার

নগরীর মিয়াপাড়া থেকে রাইছা আক্তার রোজা নামের এক শিশুকে অপহরণের পর কুষ্টিয়ার কাঞ্চনপুর এলাকা থেকে উদ্ধারের মামলায় গ্রেফতার আরজান বিবি ওরফে রুবিনা আক্তার (৪৫) আদালতে স্বীকারোক্তিমুলক জবানবন্দি প্রদান করেছেন।

শুক্রবার রুবিনার দেয়া ফৌজদারী কার্যবিধির ১৬৪ ধারার জবানবন্দি মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট ড. আতিকুস সামাদ রেকর্ড করেছেন। এ মামলার অপর আসামি রুবিনার স্বামী কুষ্টিয়া জেলা সদরের কাঞ্চনপুর এলাকার আবু তালেব বিশ্বাসের ছেলে ফারুক বিশ্বাস (৪৭) রিমান্ডে রয়েছেন। এর আগে ১৬ জুলাই মামলার তদন্ত কর্মকর্তা খুলনা থানার এসআই আবু সাঈদ আসামিদের আদালতে হাজির করে ৫দিনের রিমা-ের আবেদন করেছিলেন। আদালত তাদের দু’দিনের রিমা- মঞ্জুর করেছিল।

মামলার বিবরণে জানা যায়, গত ৯জুলাই দিঘলিয়া থানার কামারগাতী গ্রামের  জনি মোল্যার স্ত্রী চার বছরের মেয়ে রাইছা আক্তার রোজাকে নিয়ে নগরীর মিয়াপাড়ায় ছোট ভাই শিমুলের বাসায় বেড়াতে আসে। পরে রোজাকে না পেয়ে তারা থানায় জিডি করেন।  এরপর তাদের কাছে ২ লাখ টাকা মুক্তিপণ দাবি করে অপহরণকারীরা। সেই মোবাইল নম্বর ট্রাকিং করে রাত সাড়ে ৩টার দিকে কুষ্টিয়া জেলার কাঞ্চনপুর এলাকা থেকে অপহৃত শিশু রোজাকে উদ্ধার করে পুলিশ। এসময় অপহরণের সঙ্গে জড়িত রুবিনা আক্তার (৪৫) ও তার স্বামী ফারুক বিশ্বাসকে (৪৭) গ্রেফতার করা হয়। এঘটনায় জনি মোল্যা বাদী হয়ে খুলনা থানায় মামলা দায়ের করেনন যারনং- ১৯।