ডুমুরিয়ায় সরকারি রাস্তায় ঘেরা-বেড়া ৯ পরিবার বিপাকে

0
Exif_JPEG_420
Spread the love

ডুমুরিয়া প্রতিনিধি:

ডুমুরিয়া উপজেলা সদরের মির্জাপুর গ্রামের উত্তরপাড়া এলাকায় একটি সরকারি বরাদ্দে নির্মিত ইটের রাস্তায় ঘেরা-বেড়া দেয়া হয়েছে। ফলে বন্ধ হয়েছে ৯ পরিবারের সদস্যদের চলাচলের রাস্তা। নিরুপায় হয়ে অসহায় ওই সদস্যরা ডুমুরিয়া উপজেলা নির্বাহী অফিসারের নিকট লিখিত আবেদন করেছেন।

সরেজমিন যেয়ে এবং দাখিতকৃত আবেদন সুত্রে জানা গেছে, মির্জাপুর গ্রামের সুশান্ত মন্ডল, বুদ্ধিশ্বর হালদার, পরিতোষ মন্ডল ও কৃষ্ণ মন্ডলসহ ৯টি পরিবারের লোকজন প্রায় এক যুগ ধরে সরকারি ভাবে মির্নিত একটি ইটের রাস্তা দিয়ে যাতায়াত করে আসছেন। সম্প্রতি ওই রাস্তাটি প্রতিবেশি অসিত মন্ডল, সুমন্ত মন্ডল ও দিনবন্ধু মন্ডলসহ কতিপয় লোকজন ইট তুলে ঘেরা-বেড়া দিয়েছেন। ফলে আবেদন কারিরা পড়েছেন মহাবিপাকে। এ ঘটনার প্রতিকার চেয়ে তারা উপজেলা নির্বাহী অফিসারের নিকট লিখিত ভাবে আবেদন করেছেন।

এ বিষয়ে ভুক্তভোগী সুশান্ত মন্ডল ও বুদ্ধিশ্বর হালদার জানান, আমরা প্রায় এক যুগ ধরে ওই রাস্তা দিয়ে যাতায়াত করছি। হঠাৎ করে প্রতিপক্ষরা রাস্তার ঘেরা-বেড়া দিয়েছেন। আবার এই নিয়ে কোন বিরোধীতা করলে দেখে নেবেন বলে হুমকি ধামকিও দিচ্চেন। বর্তমানে আমরা ৯টি পরিবার দিশেহারা হয়ে পড়েছি।

বিষয়টি নিয়ে প্রতিপক্ষ সুমন্ত মন্ডল জানান, এক যুগ আগে রাস্তাটি আমাদের শরীকের জায়গার ওপর করা হয়েছে। রাস্তাটি তৈরী করার সময় আমাদের জমির দাম বা সমপরিমাণ টাকা দেওয়ার কথা ছিল। কিন্তু তারা আজও পর্যন্ত জমি বা কোন টাকাও দেয়নি। তাই আমরা ঘেরা-বেড়া দিয়েছি।

এ বিষয়ে ডুমুরিয়া উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোছাঃ শাহনাজ বেগম জানান, আবেদনপত্র পেয়ে বিষয়টি তদন্তের জন্য উপজেলা এসিল্যান্ড কার্যালয়ে প্রেরণ করা হয়েছে। তদন্ত প্রতিবেদন পেলেই প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে।