বাংলাদেশ কোস্ট গার্ড কর্তৃক বিপুল পরিমাণ চোরাই কাপড় জব্দ: আটক ১২

4
Spread the love

খুলনাঞ্চল রিপোর্ট

শুল্ক কর ফাঁকি দিয়ে সমুদ্রপথে আসা প্রায় ২৩ কোটি টাকা মূল্যের অবৈধ বিদেশী কাপড় আটক করেছে কোস্ট গার্ড পশ্চিম জোন। গত ১৫ ফেব্রুয়ারী ২০২০ তারিখ রাতে কোস্ট গার্ড পশ্চিম জোনের বিসিজিএসস¦াধীনবাংলা জাহাজ সমুদ্রে টহলরত অবস্থায় মোংলা ফেয়ারওয়ে বয় সংলগ্ন এলাকায় অভিযান চালিয়ে উক্ত পণ্য আটক করে। অভিযান চলাকালে কোস্ট গার্ড এর উপস্থিতি টের পেয়ে চোরাকারবারী দল দ্রুতগতিতে পালিয়ে যাওয়ার চেষ্টা কালে কোস্ট গার্ড জাহাজ পিছুধাওয়া করে ১২ জন ক্রু সহকারে অবৈধ কাপড় বোঝাইকৃত ট্রলারটি আটক করতে সক্ষম হয়। পরবর্তীতে উক্ত ট্রলার তল্লাশী করে ২০,৬৯৯ পিস উন্নত মানের বিদেশী শাড়ি, ৩২১ পিস লেহেঙ্গা এবং ১১০ পিস থ্রি-পিছ জব্দ করা হয়। আটককৃতরা হলেন, স্বপন (৩৮), গিয়াসউদ্দিন (৫০), আব্দুল কাদের (৩৩), মোঃ বাবু (১৯), শেখ ফরিদ (৩৬), মোসলে উদ্দিন (২৮), মামুন (২১), হুমায়ুন কবির (৩০), সোলায়মান (৪০), আবু কালাম (৫০), হারুন হাওলাদার মাঝি (৫৫), বাহার উদ্দিন (৪৫)। আটককৃত ১২ জন ক্রু ও উদ্ধারকৃত মালামাল পরবর্তী আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহনের জন্য মোংলা থানায় হস্তান্তর করা হয়েছে। জব্দকৃত মালামালের আনুমানিক বর্তমান প্রচলিত বাজারমূল্য প্রায় ২৩ কোটি টাকা। খুলনাসহ তৎসংলগ্ন এলাকায় অবৈধ বিদেশী কাপড়ের চোরাচালানী রোধ কল্পে বাগেরহাট, খুলনা ও সাতক্ষীরা এলাকা সমূহে কোস্ট গার্ড পশ্চিম জোন কর্তৃক টহল জোরদার করা হয়েছে এবং এই সাফল্য উক্ত টহলেরই অংশ। একটি চক্র নিজ স্বার্থ হাসিলের জন্য ও সরকারী শুল্ক ফাঁকি দিয়ে অবৈধভাবে বিদেশী কাপড় চোরাচালান ও চোরাইপথে আমদানি করছে যা একবারেই কাম্য নয়, নদী ও সমুদ্র পথে চোরাচালান বন্ধে বাংলাদেশ কোস্ট গার্ডের নিয়মিত অভিযান অব্যহত থাকবে।