সকল জাতীয় সংবাদ

0
69

জাতীয় ঐক্যের নতুন কর্মসূচি ঘোষণা
৭ অক্টোবর রাজধানীতে মানববন্ধন
ঢাকা অফিস
নতুন কর্মসূচি ঘোষণা করেছে জাতীয় ঐক্য প্রক্রিয়া। আগামী ৭ অক্টোবর রাজধানীতে মানববন্ধন করবে এই প্ল্যাটফর্ম। গতকাল সোমবার জাতীয় ঐক্য প্রক্রিয়ার রাজধানীর ধানমÐির কার্যালয়ে বেলা ১১টায় সংবাদ সম্মেলন থেকে এ কর্মসূচি ঘোষণা করা হয়। কর্মসূচি ঘোষণা করেন জাতীয় ঐক্য প্রক্রিয়ার সদস্য সচিব আ ব ম মোস্তাফা আমীন।
তিনি বলেন, জাতীয় ঐক্য প্রক্রিয়া জনগণের ভোটের অধিকার প্রতিষ্ঠার লক্ষ্যে ঐক্যবদ্ধ হওয়ার উদ্যোগ অব্যাহত রাখবে। নাগরিক অধিকারের আওতায় অহিংস পদ্ধতিতে গণজাগরণ সৃষ্টির মাধ্যমে সরকারকে দাবি পূরণে বাধ্য করবে। এ লক্ষ্য অর্জনে ৭ অক্টোবর জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে বিকাল ৪টায় মানববন্ধন কর্মসূচি পালন করবে।
সংবাদ সম্মেলনে আরও বলা হয়, জাতীয় ঐক্য প্রক্রিয়া ৩০ সেপ্টেম্বরের মধ্যে আলাপ-আলোচনার মাধ্যমে নির্বাচনকালীন নিরপেক্ষ সরকার গঠনের উদ্যোগ নিতে সরকারের প্রতি দাবি জানিয়েছিল। কিন্তু এ সময়ের মধ্যে সরকার কোনো উদ্যোগ নেয়নি। এছাড়াও সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন জাতীয় ঐক্য প্রক্রিয়ার নেতা সুলতান মোহাম্মদ মনসুর আহমেদ, জগলুল হায়দার আফ্রিক প্রমুখ।
গত ২২ সেপ্টেম্বর গুলিস্তানের মহানগর নাট্যমঞ্চে জাতীয় ঐক্য প্রক্রিয়ার নাগরিক সমাবেশ থেকে ৩০ সেপ্টেম্বরের মধ্যে রাজনৈতিক দলগুলোর সঙ্গে আলোচনা শুরু, নির্বাচনকালীন সরকার গঠন, নির্বাচন কমিশন পুনর্গঠনসহ পাঁচ দফা দাবি মেনে নিতে সরকারকে সময় বেঁধে দেন ড. কামাল হোসেন।
এতে বলা হয়েছিল, দাবি আদায়ে ১ অক্টোবর থেকে যুক্তফ্রন্ট এবং জাতীয় ঐক্য প্রক্রিয়ার নেতারা সারা দেশে সভা-সমাবেশ করবেন। একই সঙ্গে সারা দেশে ‘বৃহত্তর জাতীয় ঐক্য’ নামে কমিটি গঠনের আহŸানও জানানো হয়। কিন্তু এর মধ্যে অসুস্থ হয়ে পড়েন জাতীয় ঐক্য প্রক্রিয়ার আহŸায়ক ড. কামাল হোসেন।
গত ২৬ সেপ্টেম্বর মধ্যরাতে চিকিৎসা নিতে ব্যাংকক যান ড. কামাল হোসেন। জাতীয় ঐক্য প্রক্রিয়ার নেতারা জানান, চিকিৎসা শেষে ৬ বা ৭ অক্টোবর ড. কামাল দেশে ফিরবেন।

জাতীয় ঐক্যের আন্দোলনে সামনে থাকবে বিএনপি: নজরুল
ঢাকা অফিস
বৃহত্তর জাতীয় ঐক্যের আন্দোলনে বিএনপি সামনের কাতারে থাকবে বলে জানিয়েছেন দলের স্থায়ী কমিটির সদস্য ও ২০ দলীয় জোটের সমন্বয়ক নজরুল ইসলাম খান।
তিনি বলেন, আমাদের নেত্রী খালেদা জিয়া ২০১৬ সালে বৃহত্তর ঐক্যের ডাক দিয়েছিলেন। তিনি যে পয়েন্টগুলো দিয়েছিলেন এখন দেখছি আমাদের বাম রাজনৈতিক দলগুলো, যুক্তফ্রন্ট ও ড. কামাল হোসেনের ঐক্য প্রক্রিয়া সেই একই দাবি করেছেন। এই সরকারকে পদত্যাগ করতে হবে, নির্দলীয় সরকারের অধীনে নির্বাচন দিতে হবে, সংসদ বাতিল করতে হবে, ইভিএম করা যাবে না, নির্বাচনের আগে ও পরে সেনা মোতায়েন করতে হবে এই দাবিগুলো খালেদা জিয়া বৃহত্তর ঐক্যের ডাকে বলেছিলেন। আর যাদের সঙ্গে আমাদের দাবি এক তাদের সঙ্গে মিলে লড়াই আমরা অবশ্যই করতে পারবো। আমরা বিএনপির পক্ষ থেকে বলেছি- আমরা শুধু বৃহত্তর ঐক্যে রাজি নই, বৃহত্তর ঐক্যের আন্দোলনে আমরা সামনের কাতারে থাকবো।
গতকাল সোমবার জাতীয় প্রেসক্লাবের কনফারেন্স লাউঞ্জে সম্মিলিত ছাত্র ফোরামের উদ্যেগে আয়োজিত বিএনপির যুগ্মমহাসচিব হাবিব উন নবী সোহেল ও যুবদল সাধারণ সম্পাদক সুলতান সালাউদ্দিন টুকুর মুক্তির দাবিতে এক সভায় এ কথা বলেন তিনি।
নজরুল ইসলাম খান বলেন, বিএনপির স্মরণকালের বৃহত্তম জনসভা দেখে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের হতাশ হয়েছেন, কারণ তারা চিন্তাও করতে পারেনি এতো অল্প সময়ের মিটিংয়ে এতো মানুষ হবে, হতাশ হওয়ারই কথা। আওয়ামী লীগের সমাবেশ নিয়ে ৭দিন ধরে তারা প্রস্তুতি নেয়। বিশাল সাইজের প্যান্ডেল করে। ওপরে ত্রিপল, নীচে কার্পেট, সামনে সোফা, পিছনে চেয়ার। স্কুল-কলেজের শিক্ষার্থী, মসজিদের ইমাম, সরকারি কর্মচারীদের নিয়ে আসেন। এতকিছু করার পর যেই মানুষ হয়, আর আমাদের মাত্র ২৪ ঘণ্টার নোটিশে যে পরিমান মানুষ হয় তা দেখে হতাশ হওয়াই স্বাভাবিক। হতাশার জন্য দুঃখ প্রকাশ করছি। বিএনপির সমাবেশে জনতার উপচে পড়া ঢেউ দেখে আওয়ামী লীগ নেতা প্রলাপ বকছেন।
বিএনপির সাংগঠনিক সম্পাদক রুহুল কুদ্দুস তালুকদার দুলু বলেন, কাদের সাহেবের বক্তব্য শুনে বাড়ির বউয়েরাও হাসে। সরকার নিশ্চয়ই রবিবার একটা মেসেজ পেয়েছেন, জনগণ তাদের সঙ্গে নেই। জনগণ আমাদের সঙ্গে একত্বতা প্রকাশ করতেই আমাদের সমাবেশে জড়ো হয়েছে। তিনি বলেন, দুই মাসের মধ্যেই আওয়ামী লীগ বিদায় নেবে। ইতোমধ্যে আমরা জানতে পেরেছি আওয়ামী লীগের নেতাদের ভিসা পাসপোর্ট রেডি। তারা পালানোর জন্য প্রস্তুত হয়ে গেছে।

এস কে সিনহার বিরুদ্ধে নাজমুল হুদার মামলা
ঢাকা অফিস
সাবেক প্রধান বিচারপতি সুরেন্দ্র কুমার সিনহার বিরুদ্ধে দুর্নীতি ও ক্ষমতার অপব্যবহারের অভিযোগে শাহবাগ থানায় মামলা হয়েছে।
গতকাল সোমবার বিকেলে বাংলাদেশ ন্যাশনালিস্ট অ্যালায়েন্সের (বিএনএ) চেয়ারম্যান ও সাবেক যোগাযোগমন্ত্রী ব্যারিস্টার নাজমুল হুদা বাদী হয়ে মামলাটি দায়ের করেন বলে সাংবাদিকদের নিশ্চিত করেন শাহবাগ থানার ওসি আবুল হাসান। দুর্নীতি দমন কমিশনের তদন্ত ও আইনের সঙ্গে সংগতিপূর্ণ হওয়ায় মামলাটি দুদকে পাঠিয়ে দেওয়া হয়েছে বলে জানান তিনি।
স¤প্রতি যুক্তরাষ্ট্রে অবস্থানরত সাবেক প্রধান বিচারপতি সুরেন্দ্র কুমার সিনহার বই প্রকাশের পর তুমুল আলোচনার মধ্যে তার ভাই অনন্ত কুমার সিনহার বিরুদ্ধে অর্থ পাচারের মাধ্যমে যুক্তরাষ্ট্রে বাড়ি কেনার একটি অভিযোগের বিষয়ে গতকাল সোমবার সকালেই অনুসন্ধান শুরু করে দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক)। তবে, এ বিষয়ে এখনও পর্যন্ত কোনো আনুষ্ঠানিক বক্তব্য জানায়নি দুদক।
অভিযোগ আছে, যুক্তরাষ্ট্রের নিউজার্সিতে এসকে সিনহার ছোট ভাই অনন্ত কুমার সিনহার নামে প্রায় ২ কোটি ৩০ লাখ টাকা মূল্যের একটি বাড়ি কেনেন এসকে সিনহা। প্রায় চার হাজার স্কয়ার ফিটের বাড়িটির বাসিন্দা এসকে সিনহা নিজে। স¤প্রতি সংবাদমাধ্যমে এই বিষয়ে খবর প্রকাশ হয়।

ভুট্টাবোঝাই ট্রাকের কেবিনে মিলল ঝলসানো ২ লাশ
খুলনাঞ্চল রিপোর্ট
সিরাজগঞ্জে মহাসড়কের পাশে দাঁড়িয়ে থাকা একটি ভুট্টাবোঝাই ট্রাকের কেবিন থেকে ২ ব্যক্তির লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। পুলিশের ধারণা নিহতরা ট্রাকের চালক ও হেলপার। গতকাল সোমবার দুপুরে বঙ্গবন্ধু সেতুর পশ্চিম সংযোগ মহাসড়কের সায়দাবাদ এলাকা থেকে ট্রাকটি (রংপুর ট-১১-০৪০৮) জব্দ করা হয় বলে জানান বঙ্গবন্ধু সেতুর পশ্চিম থানার ওসি সৈয়দ শহিদ আলম।
পুলিশ জানায়, গত রবিবার বিকেল থেকে ট্রাকটি মহাসড়কের পাশে দাঁড়িয়ে থাকতে দেখেন স্থানীয়রা। ট্রাকটির ভিতর থেকে দুর্গন্ধ বের হওয়ায় স্থানীয়রা সোমবার দুপুরে পুলিশে খবর দেন। সংবাদ পেয়ে ঘটনাস্থল থেকে ২টি লাশ উদ্ধার এবং ভুট্টাবোঝাই ট্রাকটি জব্দ করা হয়।
ট্রাকের মালিক লালমনিরহাটের পাটগ্রাম উপজেলার পশ্চিম জগতদেল এলাকার আব্দুল কাদের। তার সঙ্গে মোবাইলে যোগাযোগের উদ্ধৃতি দিয়ে পুলিশ জানায়, পাটগ্রাম থেকে ১১ টন ভুট্টা দিয়ে ট্রাকটি গত শনিবার বিকেল সাড়ে ৪টার দিকে নরসিংদি জেলায় যাবার জন্য রওনা দেয়। সন্ধ্যা সাড়ে ৭টা পর্যন্ত মালিকের সঙ্গে তাদের যোগাযোগ ছিল। ট্রাক মালিকের দেয়া তথ্যমতে উদ্ধার হওয়া লাশ ২টি ট্রাকের চালক ও হেলপারের। তাদের মধ্যে চালক আল-আমিন হোসেন রংপুর এবং হেলপার সোহেল পাটগ্রামের বাসিন্দা। তাদের পরিচয় নিশ্চিতে স্বজনদের থানায় আসতে বলা হয়েছে। এদিকে সংবাদ পেয়ে পিবিআই, সিআইডি, ও জেলা পুলিশের গোয়েন্দা শাখা ঘটনাস্থলে গিয়ে প্রাথমিক তদন্ত শুরু করেছে।
সিরাজগঞ্জের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (ক্রাইম) মোঃ ফোরকান শিকদার বলেন, প্রাথমিকভাবে ধারনা করা হচ্ছে অন্য কোথাও শ্বাসরোধে হত্যার পর ট্রাকের কেবিনের ভিতরে নিহতদের লাশ বহন করে ঘটনাস্থলে রেখে হত্যাকারীরা পালিয়েছে। নিহতদের শরীরের অনেকাংশ ঝলসে গেছে। ট্রাকের ইঞ্জিনের তাপে নাকি অন্য কোন কারণে সেটি হয়েছে তা খতিয়ে দেখা হচ্ছে।
পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেসটিগেশনের (পিবিআই) সিরাজগঞ্জ জেলা শাখার ইনচার্জ অতিরিক্ত পুলিশ সুপার এসএম তারেক বলেন, ধারনা করা হচ্ছে ২৪ ঘণ্টা আগে তাদের মৃত্যু হয়েছে। যেহেতু ট্রাকে রাখা ভুট্টা লুট বা চুরি হয়নি, তাই খুনের ঘটনার মোটিভ পারিবারিক, ব্যবসায়িক বা ব্যাক্তিগত দ্বন্দ্বও হতে পারে। তিনি আরও বলেন, দুজনের মুখমÐলসহ শরীরের বেশ কিছু অংশ দগ্ধ হয়েছে। লাশগুলো উদ্দেশ্যমূলকভাবে কোন দাহ্য কেমিক্যাল পদার্থ দিয়ে ঝলসানো হয়েছে কিনা, অথবা ইঞ্জিনের তপ্ত তেল বা পানিতে ঝলসে গেল কি-না, তা সঠিক তদন্তে বের হয়ে আসবে।

বরিশাল মেয়রের পদত্যাগের ঘোষণা
খুলনাঞ্চল রিপোর্ট
অসহযোগিতার অভিযোগ তুলে মেয়াদ শেষের ২২ দিন আগে পদত্যাগের ঘোষণা দিয়েছেন বরিশাল সিটি করপোরেশনের (বিসিসি) মেয়র বিএনপি নেতা আহসান হাবিব কামাল। গতকাল সোমবার দুপুর দেড়টায় নিজের বাড়িতে আকস্মিক সংবাদ সম্মেলন ডেকে তিনি এই ঘোষণা দেন।
জেলা বিএনপির সাবেক সভাপতি কামাল বলেন, সিটি করপোরেশনের তহবিলে বিপুল পরিমাণ অর্থ মজুদ থাকলেও আমি কোনো উন্নয়নকাজ করতে পারছি না। কর্মকর্তারা আমাকে সহযোগিতা করছেন না। তাই পদত্যাগের সিদ্ধান্ত নিয়েছি। আগামী ৪ অক্টোবর আনুষ্ঠানিকভাবে পদত্যাগ করব। আগামী ২৩ অক্টোবর পর্যন্ত মেয়র কামালের নেতৃত্বাধীন বর্তমান পরিষদের মেয়াদ রয়েছে।
কামাল বলেন, মেয়র ও প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তার যৌথ স্বাক্ষরে ব্যাংক থেকে টাকা তুলতে হয়। কিন্তু স¤প্রতি বদলি হওয়া প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা মো. ওয়াহিদুজ্জামানকে চেকে স্বাক্ষর করতে দেওয়া হয়নি। এরপর মন্ত্রণালয় থেকে সিটি করপোরেশনের সচিবের স্বাক্ষরের নির্দেশ আনার চেষ্টা করা হলেও অদৃশ্য শক্তির কারণে এটা সম্ভব হয়নি। ফলে তহবিলে মোটা অঙ্কের টাকা জমা থাকলেও উত্তোলন করা যাচ্ছে না। অর্থের অভাবে থমকে আছে উন্নয়নকাজসহ দৈনন্দিন কর্মকাÐ। তবে কারা সাবেক প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তাকে চেকে স্বাক্ষর করতে দেননি সে বিষয়ে কিছু বলতে রাজি হননি মেয়র কামাল।
বরিশালে নতুন মেয়র নির্বাচনে ভোটগ্রহণ ইতোমধ্যে হয়েছে। ফলাফল আনুষ্ঠানিকভাবে প্রকাশ না হলেও আওয়ামী লীগের প্রার্থী সাদেক আবদুল্লাহ জয় মোটামুটি নিশ্চিত। বিএনপি এবার প্রার্থী বদলে মজিবুর রহমান সরোয়ারকে প্রার্থী করেছিল।

হাতকড়াসহ জামায়াত নেতা ছিনতাই
খুলনাঞ্চল রিপোর্ট
সিরাজগঞ্জে হাতকড়াসহ পুলিশের কাছ থেকে আলাউদ্দিন আল আজাদ নামে এক জামায়াত নেতাকে ছিনিয়ে নিয়েছে জামায়াতকর্মীরা। গতকাল সোমবার দুপুরে উল্লাপাড়া উপজেলার কয়ড়া ইউনিয়নের চরপাড়া গ্রামে ঘটনাটি ঘটে। আলাউদ্দিন উপজেলা জামায়াতের সাধারণ সম্পাদক। তার বিরুদ্ধে উল্লাপাড়া মডেল থানায় সন্ত্রাস ও নাশকতায় ১৬টি মামলা রয়েছে।
স্থানীয় সূত্র জানায়, গতকাল সোমবার দুপুরে চরপাড়া গ্রামের হাজী জয়নাল আবেদীনের মৃত্যুবার্ষিকীর অনুষ্ঠান ছিল। আত্মীয় হিসেবে ওই অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন জামায়াত নেতা আলাউদ্দিন আল আজাদ। তার উপস্থিত থাকার খবর পেয়ে উল্লাপাড়া মডেল থানা পুলিশের এসআই রিপনসহ ৬ সদস্যের একটি দল বাড়িটি ঘেরাও করে গ্রেফতার হয় আলাউদ্দিনকে। পুলিশ তাকে হাতকড়া পরিয়ে গাড়িতে তোলার সময় স্থানীয় জামায়াত-শিবিরের কর্মীরা পুলিশের ওপর হামলা চালায়। এ সময় তারা পুলিশকে লাঞ্ছিত করে আলাউদ্দিনকে হাতকড়াসহ ছিনিয়ে নিয়ে যায়। ঘটনার পর থেকে ওই এলাকায় চরম উত্তেজনা বিরাজ করছে। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণ করতে অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।
উল্লাপাড়া মডেল থানার ওসি দেওয়ান কউসিক আহমেদ জানান, ঘটনার পর অতিরিক্তি পুলিশ মোতায়েন করে ওই জামায়াত নেতাকে গ্রেফতার করতে অভিযান শুরু হয়েছে। এছাড়াও ঘটনার সাথে জড়িতদের বিরুদ্ধে পুলিশ অ্যাসল্ট মামলা দায়ের করা হবে।

পুলিশে ৪ হাজার ৪৪টি পদ সৃষ্টি হচ্ছে
ঢাকা অফিস
প্রধানমন্ত্রীর প্রতিশ্রæতি অনুযায়ী বাংলাদেশ পুলিশে নতুন ৫০ হাজার জনবল বৃদ্ধির অংশ হিসেবে ইতোমধ্যে ৪৫ হাজার ৯৫৬টি পদ সৃষ্টির কাজ সম্পন্ন হয়েছে। অবশিষ্ট ৪ হাজার ৪৪টি পদ সৃষ্টির কার্যক্রম প্রক্রিয়াধীন রয়েছে।
গতকাল সোমবার সংসদ ভবনে অনুষ্ঠিত সরকারি প্রতিশ্রæতি সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটির ৪২তম বৈঠকে এ তথ্য জানানো হয়। বৈঠকে সভাপতিত্ব করেন কমিটির সভাপতি মো. আব্দুস শহীদ। কমিটির সদস্য অ্যাডভোকেট মো. রহমত আলী এবং শামীম হায়দার পাটোয়ারী বৈঠকে অংশ নেন।
বৈঠকে ৯ম ও ১০ম জাতীয় সংসদের ফ্লোরে প্রধানমন্ত্রী এবং স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর দেওয়া প্রতিশ্রæতির বাস্তবায়নের হালনাগাদ তথ্য পর্যালোচনা করা হয়। বৈঠকে সরকারের বাস্তবায়ন, পরিবীক্ষণ ও মূল্যায়ন বিভাগ (আইএমইডি) বিভিন্ন প্রকল্পের বাস্তবায়ন অগ্রগতি বিষয়ে প্রতিবেদন প্রদান করে।
প্রতিবেদন অনুযায়ী, দশম সংসদে প্রধানমন্ত্রী ও স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী কর্তৃক ৩৫২টি প্রতিশ্রæতি দেয়া হয়েছে। এর মধ্যে পুলিশ অধিদফতরের অধীন ৩৪৮টি প্রতিশ্রæতি প্রকল্পের মধ্যে ৫৪টি প্রকল্প বাস্তবায়িত হয়েছে, ১২৭টি প্রকল্প আংশিক বাস্তবায়িত হয়েছে, ৫টি বাস্তবায়াধীন রয়েছে। ১৫৮টি প্রকল্প প্রক্রিয়াধীন রয়েছে। এছাড়া বর্ডার গার্ড বাংলাদেশের ১টি, আনসার ও ভিডিপি অধিদফতরে ১টি এবং বাংলাদেশ কোস্টগার্ডের অধীন ২টি প্রতিশ্রæতি বাস্তবায়নের অপেক্ষায় আছে।
সংসদ সচিবালয়ের গণসংযোগ বিভাগ জানায়, ২০১৭-১৮ অর্থবছরে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের সুরক্ষা সেবা বিভাগের প্রকল্প বাস্তবায়ন অগ্রগতি ৯৪ দশমিক ৪১ ভাগ এবং জননিরাপত্তা বিভাগের প্রকল্প বাস্তবায়ন অগ্রগতি ৯৯ দশমিক ০৫ ভাগ।
কমিটি প্রকল্পের মান ঠিক রেখে অসমাপ্ত প্রকল্পসমূহের কাজ যথাসময়ে সম্পন্ন করার সুপারিশ করে। স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের জননিরাপত্তা বিভাগের সচিব, সুরক্ষা ও সেবা বিভাগের সচিবসহ সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তারা বৈঠকে উপস্থিত ছিলেন।

সরকারি হলো আরো ২৫ উচ্চ বিদ্যালয়
খুলনাঞ্চল রিপোর্ট
জাতীয়করণ হয়েছে আরো ২৫টি বেসরকারি উচ্চ বিদ্যালয়। গতকাল সোমবার শিক্ষা মন্ত্রণালয় এ সংক্রান্ত প্রজ্ঞাপন জারি করেছে। প্রজ্ঞাপনে উল্লেখ করা হয়েছে জাতীয়কৃত বিদ্যালয়ের কোনো শিক্ষক অন্যত্র বদলি হতে পারবেন না।
জাতীয়করণ ২৫টি বেসরকারি উচ্চ বিদ্যালয়গুলো হলো- জুড়ী মডেল উচ্চ বিদ্যালয়, জুড়ী, মৌলভীবাজার, কবিরহাট মডেল উচ্চ বিদ্যালয়, কবিরহাট, নোয়াখালী, পোমরা বঙ্গবন্ধু উচ্চ বিদ্যালয়,রাঙ্গুনিয়া, চট্টগ্রাম, বিরল পাইলট উচ্চ বিদ্যালয়, বিরল, দিনাজপুর, দশমনি মডেল উচ্চ বিদ্যালয়, দশমনি পটুয়াখালী, তালতলী মডেল মাধ্যমিক বিদ্যালয়, তালতলী, বরগুনা, আলফাডাঙ্গা আরিফুজ্জামান (মডেল) পাইলট উচ্চ বিদ্যালয়, আলফাডাঙ্গা, ফরিদপুর, নলছিটি মার্চেন্টস মডেল মাধ্যমিক বিদ্যালয়, নলছিটি, ঝালকাঠী, বেলাব পাইলট মর্ডান মডেল হাই স্কুল, বেলাবো, নরসিংদী, চরসিন্দুর বহুমুখী উচ্চ বিদ্যালয়, পলাশ, নরসিংদী, গাছবাড়ীয়া নিত্যানন্দ গৌরচন্দ্র মডেল উচ্চ বিদ্যালয়, চন্দনাইশ, চট্টগ্রাম, পরশুরাম মডেল পাইলট হাইস্কুল, পরশুরাম, ফেনী, তারাগঞ্জ পাইলট উচ্চ বিদ্যালয়, নালিতাবাড়ী, শেরপুর, সোনাইমুড়ি মডেল উচ্চ বিদ্যালয়, সোনাইমুড়ি, নোয়াখালী, মিঠাপুকুর মডেল উচ্চ বিদ্যালয়, মিঠাপুকুর, রংপুর, দোয়ারাবাজার মডেল উচ্চ বিদ্যালয়, দোয়ারাবাজার, সুনামগঞ্জ ধামরাই হার্ডিঞ্জ উচ্চ বিদ্যালয়, ধামরাই, ঢাকা, জয়পাড়া পাইলট উচ্চ বিদ্যালয়, দোহার, ঢাকা, নবাবগঞ্জ পাইলট উচ্চ বিদ্যালয় ও কলেজ, নবাবগঞ্জ, ঢাকা, কাপাসিয়া পাইলট উচ্চ বিদ্যালয়, কাপাসিয়া, গাজীপুর, আড়াইহাজার পাইলট মডেল উচ্চ বিদ্যালয়, আড়াইহাজার, নারায়ণগঞ্জ, যদুনাথ পাইলট মডেল উচ্চ বিদ্যালয়, নাগরপুর, টাঙ্গাইল, সোনারং পাইলট মডেল উচ্চ বিদ্যালয়, টঙ্গীবাড়ি, মুন্সীগঞ্জ, বাঞ্ছারামপুর এস. এম, পাইলট মডেল উচ্চ বিদ্যালয়, বাঞ্ছারামপুর, ব্রাহ্মণবাড়ীয়া, নাঙ্গলকোট এ. আর. মডেল উচ্চ বিদ্যালয়, নাঙ্গলকোট, কুমিল্লা।
সরকারি বিদ্যালয় ও কলেজবিহীন উপজেলায় একটি করে বিদ্যালয় ও কলেজ জাতীয়করণের ব্যাপারে ঘোষণা দেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। এর ভিত্তিতে বিভিন্ন সময়ে প্রধানমন্ত্রীর সম্মতি দেয়া বিদ্যালয়গুলো একে জাতীয়করণের আদেশ জারি হচ্ছে। জানা গেছে, দেশে পুরনো সরকারি হাইস্কুল আছে ৩৩৩টি। পরে বিভিন্ন সময়ে ১২টি মডেল বিদ্যালয়সহ ২১৩টি মাধ্যমিক বিদ্যালয় জাতীয়করণ করা হয়। বর্তমানে নুতন করে আরো ২৫বিদ্যালয় জাতীয়করণ করায় দেশে মোট সরকারি বিদ্যালয়ের সংখ্যা দাঁড়ালো ৫৭৬টি।

টাঙ্গাইলে যৌন হয়রানির অভিযোগে শিক্ষকের কারাদÐ
খুলনাঞ্চল রিপোর্ট
টাঙ্গাইলে যৌন হয়রানির অভিযোগে বিন্দুবাসিনী সরকারি বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক সাইদুর রহমানকে মারধর করে পুলিশে দিয়েছে ছাত্রী ও অভিভাবকরা। পরে ভ্রাম্যমাণ আদালত বসিয়ে তাকে এক বছরের কারাদÐ দেয়া হয়। ভ্রাম্যমাণ আদালতের বিচারক নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট শাহরিয়ার রহমান গতকাল সোমবার দুপুরে এ কারাদÐ ঘোষণা করেন।
জানা যায়, বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক সাইদুর রহমান দীর্ঘদিন ধরে ক্লাশে ও ক্লাশের বাইরে ছাত্রীদের বিভিন্ন অশালীন মন্তব্যসহ কু-প্রস্তাব দিয়ে আসছিলেন। তিনি সুযোগ পেলেই ছাত্রীদের শরীরে হাত দিতেন। অভিভাবকদের নিয়েও অশালীন মন্তব্য করতেন। সর্বশেষ গত রবিবার তিনি নবম শ্রেণির এক ছাত্রীকে কু-প্রস্তাব দেন। ওইদিনই সব ছাত্রী মিলে প্রধান শিক্ষক মামুন তালুকদারকে বিষয়টি জানায়। কিন্তু প্রধান শিক্ষক কোনো ব্যবস্থা না নিয়ে উল্টো অভিযুক্ত শিক্ষকের পক্ষ নেন এবং স্কুল থেকে বের করে দেওয়ার হুমকি দিয়ে ছাত্রীদের কাছ থেকে স্বাক্ষর আদায় করেন। একপর্যায়ে বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী ও অভিভাবকরা বিক্ষুব্ধ হয়ে উঠেন।
গতকাল সোমবার সকালে অভিযুক্ত শিক্ষকের বিচার ও শাস্তির দাবিতে ছাত্রীরা বিদ্যালয়ে মিছিল বের করে। এ সময় সাইদুর রহমান বিদ্যালয়ের অফিস কক্ষে প্রবেশ করলে তাকে টেনে হিঁচড়ে বাইরে এনে বেদম মারপিট করেন শিক্ষার্থী ও অভিভাবকেরা। খবর পেয়ে পুলিশ এসে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে আনে। এ সময় অভিযুক্ত সহকারী শিক্ষক সাইদুর রহমানের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দাবি করেন শিক্ষার্থী ও অভিভাবকরা। একই সাথে যৌন হয়রানীতে সহায়তাকারী প্রধান শিক্ষক মামুন তালুকদারকে অপসারণের দাবিও করেন তারা।
বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মামুন তালুকদার অভিযোগ অস্বীকার করে জানান, তিনি কোনো ছাত্রীদের কাছ থেকে স্বাক্ষর নেননি। তাদের দাবির প্রেক্ষিতে সাঈদুর রহমান বাবুলকে পুলিশে সোপর্দ করা হয়েছে।
অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (শিক্ষা) আশরাফুল মোমিন বলেন, অভিযুক্ত শিক্ষকের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে। শিক্ষার্থীদের দাবির প্রেক্ষিতে সাইদুর রহমান বাবুলকে বরখাস্ত করা হয়েছে। এসব ঘটনায় অন্য কেউ জড়িত থাকলে তাদের বিরুদ্ধেও ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলে তিনি জানান।
টাঙ্গাইল সদর মডেল থানার ওসি সায়েদুর রহমান বলেন, অভিযুক্ত শিক্ষককে পুলিশ হেফাজতে নেয়া হয়েছে। পরে ইভটিজিংয়ের অভিযোগে ভ্রাম্যমাণ আদালতের মাধ্যমে তাকে এক বছরের কারাদÐ দিয়ে জেলহাজতে পাঠিয়ে দেওয়া হয়। বর্তমানে পরিস্থিতি স্বাভাবিক হয়েছে।

নাটোরে ভাড়া বাসায় প্রকৌশলীর গলাকাটা লাশ
খুলনাঞ্চল রিপোর্ট
নাটোর শহরের চকরামপুর এলাকায় ভাড়া বাসা থেকে মামুন নামে এক ক্যাবল অপারেটর প্রকৌশলীর গলাকাটা লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। গতকাল সোমবার দুপুরে ওই এলাকার রুমানা আহম্মেদের বাসা থেকে লাশটি উদ্ধার করা হয়।
নিহত মামুন রাজশাহীর গোদাগাড়ী উপজেলার রাজাবাড়ী এলাকার বাসিন্দা এবং নাটোরের নিউ উত্তরা কমিউনিকেশন ক্যাবল অপারেটরের প্রকৌশলী।
নাটোর সদর থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) কাজী জালাল উদ্দিন আহমেদ জানান, মামুন ও কয়েকজন ক্যাবল অপারেটর কর্মী শহরের চকরামপুর এলাকায় রুমানা আহম্মেদের একটি বাসায় ভাড়া থাকতেন। গতকাল সোমবার দুপুরেও মামুন কাজে না যাওয়ায় তার সহকর্মীরা তার ঘরের সামনে গিয়ে দরজা বন্ধ অবস্থায় পায়। কিন্তু ভেতরে কোনো সাড়াশব্দ না পেয়ে তারা পুলিশে খবর দেন। পুলিশ গিয়ে ঘরের দরজা ভেঙে মেঝেতে গলাকাটা অবস্থায় মামুনের লাশ পড়ে থাকতে দেখে।
তিনি আরও জানান, লাশটি ময়না তদন্তের জন্য নাটোর সদর হাসপাতাল মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে। ঘটনাটি তদন্ত করে দেখা হচ্ছে।

‘মফস্বলের মেয়ে হয়ে এই সাফল্য যেন স্বপ্নজয়’
খুলনাঞ্চল রিপোর্ট
মিস ওয়ার্ল্ড বাংলাদেশের মুকুট এখন জান্নাতুল ফেরদৌস ঐশীর। গত রোববার জমকালো অনুষ্ঠানের মধ্য দিয়ে ঐশীর নাম বিজয়ী হিসেবে ঘোষণা করা হয়। আগামী ৭ ডিসেম্বর চীনের সানাইয়া শহরে অনুষ্ঠিত হবে ৬৮তম মিস ওয়ার্ল্ড প্রতিযোগিতা। সেই মঞ্চে বিশ্বের অন্যান্য দেশের সুন্দরীদের সঙ্গে বাংলাদেশের প্রতিনিধিত্ব করবেন তিনি। বিশ্ব সুন্দরী প্রতিযোগীর মঞ্চে ওড়াবেন বাংলাদেশের পতাকা।
খুলনাঞ্চল : আপনি এখন ‘মিস ওয়ার্ল্ড বাংলাদেশ’। কেমন লাগছে?
ঐশী : আমি বাকরুদ্ধ। এখানে যারা সেরা দশে ছিলেন সবাই যোগ্য। তাদের মধ্য থেকে সেরাদের সেরা হিসেবে নিজের নাম শুনতে পারাটা সৌভাগ্যের ব্যাপার। সবার কাছে দোয়া চাই, যেন মূল প্রতিযোগিতাতেও চমক দেখাতে পারি। মফস্বলের মেয়ে হয়ে এই সাফল্য আমার কাছে অনেক বড়। একেবারে স্বপ্ন জয়ের মতো। অনেক বড় দায়িত্বও আমার কাঁধে এসেছে। বিশ্ব দরবারে বাংলাদেশের সৌন্দর্য তুলে ধরার সুযোগ পেয়েছি- ভাবতে ভালো লাগছে। আশা করছি, নিজের দেশের শিল্প, সংস্কৃতি ও ইতিহাস মর্যাদার সঙ্গে বিশ্ব দরবারে তুলে ধরতে পারব।
খুলনাঞ্চল: এর আগে কোনো সুন্দরী প্রতিযোগিতায় অংশ নিয়েছেন?
ঐশী : এর আগে কখনো কোনো সুন্দরী প্রতিযোগিতায় অংশ নেয়ার সুযোগ হয়নি। সত্যি বলতে, এমন কখনো ভাবিনি। ছোটবেলায় আত্মীয়-স্বজন আমার সৌন্দর্যের প্রশংসা করতেন। হঠাৎ করেই শুনলাম ‘মিস ওয়ার্ল্ড বাংলাদেশ ২০১৮’-এর আবেদন চলছে। ভাবলাম আমিও আবেদন করি। কিন্তু এতদূর পর্যন্ত আসতে পারব এটা ভাবিনি। এতে অংশ নিয়ে অনেক কিছু শিখেছি। আশা করছি, আগামীতে আরো ভালো কিছু করতে পারব।
খুলনাঞ্চল: এ ধরনের অনুষ্ঠানে অনেক সময় আয়োজকদের বিরুদ্ধে নেতিবাচক কথা শোনা যায়। আপনার কী মনে হয়…
ঐশী : এখানে কাজ করতে এসে আয়োজকদের কাছ থেকে অনেক সহযোগিতা পেয়েছি। নেতিবাচক কিছু খুঁজে পাইনি।
খুলনাঞ্চল: যেহেতু প্রথমবার এ ধরনের অনুষ্ঠানে অংশ নিলেন। সেক্ষেত্রে কোনো রকম বাধার সম্মুখীন হয়েছেন কী?
ঐশী : আমি মফস্বলে বড় হয়েছি। এ ধরনের প্রতিযোগিতা সর্ম্পকে আমার কোনো পূর্ব অভিজ্ঞতা ছিল না। তাই প্রতি মুহূর্তেই শিখেছি। পড়তে হয়েছে নানারকম বাধার মুখে। এতে অনেক নিয়ম-কানুন অনুসরণ করতে হয়েছে। এগুলো জয় করেই আজ আমি মিস ওয়ার্ল্ড বাংলাদেশ হয়েছি, এটা আমার জন্য অনেক বড় প্রাপ্তি। আর এখন এই প্রাপ্তি নিয়েই সামনের পথ অতিক্রম করতে চাই।
খুলনাঞ্চল: বিশ্ব সুন্দরী প্রতিযোগিতায় অংশ নেয়ার জন্য কীভাবে নিজেকে প্রস্তুত করছেন?
ঐশী : বিশ্বের অন্যান্য সুন্দরীদের সঙ্গে প্রতিযোগিতা করব- এ জন্য নিজের সবটুকু দিয়ে চেষ্টা করব, যেন নিখুঁতভাবে নিজেকে উপস্থাপন করতে পারি। এখনো আমার গ্রুমিং বাকি আছে। সকলের কাছে দোয়া চাই যেন, মূল প্রতিযোগিতায় চমক দেখাতে পারি।
খুলনাঞ্চল: আপনার পড়াশোনা ও পারিবারিক বিষয়ে জানতে চাই।
ঐশী : বরিশালের পিরোজপুরের মাটিভাঙায় আমি বড় হয়েছি। বাবার নাম আব্দুল হাই ও মা আফরোজা হোসনে আরা। আমরা দুই বোন। বড় বোন শশী। মাটিভাঙা ডিগ্রি কলেজ থেকে এইচএসসি শেষ করে গত জুলাই মাসে ঢাকায় আসি বিশ্ববিদ্যালয় ভর্তি কোচিং করতে। এরপরই মিস ওয়ার্ল্ডে আবেদন করি।
খুলনাঞ্চল: সময় দেয়ার জন্য আপনাকে ধন্যবাদ।
ঐশী : আপনাকেও ধন্যবাদ।

‘তফসিল বিষয়ে কারো সঙ্গে ইসির কথা হয়নি’
খুলনাঞ্চল রিপোর্ট
একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের তফসিল বিষয়ে কারো সঙ্গে ইসির কোনো কথা হয়নি বলে জানিয়েছেন নির্বাচন কমিশনার কবিতা খানম। আগারগাঁওস্থ নির্বাচন ভবনে নিজ কার্যালয়ে সোমবার দুপুরে সাংবাদিকদের সঙ্গে আলাপকালে তিনি একথা জানান। আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের গতকাল রোববার সাংবাদিকদের বলেন, নভেম্বরের প্রথম সপ্তাহে জাতীয় নির্বাচনের তফসিল ঘোষণা করা হবে। এ বিষয়ে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে কবিতা খানম বলেন, ‘নির্বাচনের তফসিল ঘোষণার দায়িত্ব নির্বাচন কমিশনের। সাংবিধানিক বাধ্যবাধকতার বিষয় মাথায় রেখেই আমরা নির্বাচনের তারিখ নির্ধারণ করব। ওবায়দুল কাদের সাহেব কিংবা কেউ নির্বাচন কমিশনের সঙ্গে এ নিয়ে কোনো আলোচনা করেছেন বলে আমার জানা নেই। কারণ, আমার জানা মতে, নির্বাচন কমিশন সভা করে তফসিল ঘোষণা করে। সেই সভা এখনো হয়নি। খুব শিগগিরই এই সভা হবে।’ তিনি বলেন, ‘ওবায়দুল কাদেরের এই বক্তব্যকে এখনই আচরণবিধির লঙ্ঘন বলা ঠিক হবে না। কারণ, এখনো তফসিল ঘোষণা করা হয়নি। তফসিলের পরেই কেবল কমিশন আচরণবিধি লঙ্ঘন হচ্ছে কিনা, তা খতিয়ে দেখে।’
আগামী নির্বাচন হবে বর্তমান সংসদ বহাল রেখে। সেক্ষেত্রে সরকারের গুরুত্বপূর্ণ পদে থেকে নির্বাচনী প্রচারণার বিষয়ে এই নির্বাচন কমিশনার বলেন, ‘আরপিওতে এ বিষয়ে একটি বিধি আছে, সেখানে গুরুত্বপূর্ণ ব্যক্তিদের বিষয়ে বিশদ বলা আছে। এমপি, মন্ত্রী, স্পিকার সবার কথাই বলা আছে। সরকারি যানবাহন, সরকারি কোনো সুবিধা গ্রহণ করে তারা কোনো নির্বাচনী প্রচারণায় অংশ নিতে পারবেন না। সুতরাং এখানে নতুন কিছু করার সুযোগ আছে বলে মনে হয় না। তলফিল ঘোষণার পর এমন কিছু হলে আমরা আইনের আলোকে অ্যাকশনে যাব।’
রাজনৈতিক দলগুলো বলছে, দলীয় সরকারের অধীনে নির্বাচন সুষ্ঠু হওয়ার সম্ভাবনা নেই। সব ঠিক থাকলে এই নির্বাচন আপনাদেরকেই করতে হবে। সেক্ষেত্রে বাড়তি কোনো ব্যবস্থার কথা কী কমিশন ভাবছেÍ এমন প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, ‘এখন পর্যন্ত কমিশনের আলোচনায় বাড়তি ব্যবস্থার কোনো বিষয় আসেনি। আরপিওতে নির্বাচনকালীন সময়ে সরকারি কর্মকর্তা, আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্যদের প্রত্যাহারের বিষয়টি ছিল। এখন তার সঙ্গে বদলির বিষয়টি আমরা প্রস্তাব রেখেছি। আমরা মনে করি, প্রত্যাহারের সঙ্গে বদলির ক্ষমতা থাকলে জবাবদিহিতাটা আরো নিশ্চিত করা সম্ভব হবে।’
বর্তমান কাঠামোতে কমিশন নিজেকে যথেষ্ট শক্তিশালী মনে করে কিনাÍ সাংবাদিকদের এমন প্রশ্নে কবিতা খানম বলেন, ‘অবশ্যই। সবগুলো আইনই অত্যন্ত শক্তিশালী। কমিশনও এগুলো শক্তিশালীভাবে প্রয়োগে বিশ্বাসী। অনেক শক্ত শক্ত আইন করছি কিন্তু, সঠিকভাবে প্রয়োগ করছি না, তখন আইন যতই শক্তিশালী হোক কেন, ফল পাওয়া যায় না।’
বিতর্কের মধ্যেই একসঙ্গে দেড় লাখ ইভিএম কেনার বিষয়ে তিনি বলেন, ‘ইভিএম সব সময় লাগছে। শুধু সংসদ নির্বাচন নয়, সিটি-উপজেলা ও ইউনিয়ন পরিষদের নির্বাচন রয়েছে। প্রস্তুতি নিয়ে রাখছি। আমাদের আস্থার জায়গাটা তৈরি হলে, এটি ব্যবহার করা হবে। ইভিএম মেশিনটা যত ব্যবহার হবে, তত উন্নত হতে থাকবে। দুর্নীতি-জালিয়াতি কমে আসবে। যেসব ত্রুটি আসবে, সেগুলো ঠিক করে আমরা আরো আস্থা অর্জন করতে সক্ষম হব।’
কবিতা খানম জানান, আরপিওতে ১০ থেকে ১২টি সংশোধনীর প্রস্তাব করা হয়েছে। অনলাইনে মনোনয়নপত্র জমা দেয়ার একটা বিষয় আছে। ঋণখেলাপিদের সাত দিন আগে যেটা ছিল, এখন সেটা মনোনয়নপত্র জমা দেয়ার আগের দিন পর্যন্ত প্রস্তাব করা হয়েছে।
ইভিএম আইনি স্বীকৃতি পেলে ম্যানুয়েলে আইনের অপব্যবহারের ফলে যে শাস্তির বিধান ছিল, ইভিএমের ক্ষেত্রেও তা একই রাখা হয়েছে বলেও জানান তিনি।

ঘূর্ণিঝড় হতে পারে এ মাসে
খুলনাঞ্চল রিপোর্ট
চলতি মাসে বঙ্গোপসাগরে একটি ঘূর্ণিঝড় হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে বলে জানিয়েছে আবহাওয়া অধিদফতর। দীর্ঘমেয়াদি পূর্বাভাস দিতে আবহাওয়া অধিদফতরের গঠিত বিশেষজ্ঞ কমিটি এই পূর্বাভাস দিয়েছে। সোমবার আবহাওয়া অধিদফতরে কমিটির নিয়মিত বৈঠক হয়। অধিদফতরের পরিচালক ও বিশেষজ্ঞ কমিটির চেয়ারম্যান সামছুদ্দিন আহমেদ এতে সভাপতিত্ব করেন। বিশেষজ্ঞ কমিটি অক্টোবরের পূর্বাভাস প্রতিবেদনে জানিয়েছে, এ মাসে বঙ্গোপসাগরে এক থেকে দুটি নিম্নচাপ সৃষ্টি হতে পারে, যার মধ্যে একটি ঘূর্ণিঝড়ে রূপ নিতে পারে।
চলতি মাসে দেশে স্বাভাবিক বৃষ্টিপাত হতে পারে জানিয়ে প্রতিবেদনে বলা হয়, অক্টোবরের প্রথমার্ধে দক্ষিণ-পশ্চিম মৌসুমী বায়ুপ্রবাহ (বর্ষা) বাংলাদেশ থেকে বিদায় নিতে পারে। অক্টোবরে দেশের সব নদ-নদীর পানি কমার ধারা অব্যাহত থাকতে পারে। এ সময়ে দু-একটি নদীর পানি সামান্য বাড়লেও সব নদ-নদীর পানি বিপদসীমার নিচ দিয়ে প্রবাহিত হবে বলেও পূর্বাভাস প্রতিবেদনে উল্লেখ করা হয়েছে। সদ্য শেষ হওয়া সেপ্টেম্বরে সারাদেশে স্বাভাবিকের চেয়ে ৪৩ দশমিক ৬ শতাংশ কম বৃষ্টিপাত হয়েছে বলেও জানিয়েছে বিশেষজ্ঞ কমিটি। গত মাসে সবচেয়ে কম বৃষ্টি হয়েছে রাজশাহীতে ৬০ দশমিক ৪ শতাংশ। এ সময়ে ঢাকায় স্বাভাবিকের চেয়ে প্রায় ৫০ শতাংশ কম বৃষ্টিপাত হয়েছে।
আবহাওয়া অধিদফতর জানিয়েছে, মৌসুমী বায়ু বাংলাদেশের উপর কম সক্রিয় এবং উত্তর বঙ্গোপসাগরে দুর্বল অবস্থায় রয়েছে। সোমবার সন্ধ্যা ৬টা থেকে আগামী ২৪ ঘণ্টার পূর্বাভাসে বলা হয়েছে, বরিশাল, চট্টগ্রাম ও সিলেট বিভাগের দু-এক জায়গায় অস্থায়ী দমকা হাওয়াসহ হালকা থেকে মাঝারি ধরনের বৃষ্টি অথবা বজ্রসহ বৃষ্টি হতে পারে। সেইসঙ্গে চট্টগ্রাম বিভাগের কোথাও কোথাও মাঝারি ধরনের ভারী বৃষ্টি হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে। এছাড়া দেশের অন্যত্র অস্থায়ীভাবে আংশিক মেঘলা আকাশসহ আবহাওয়া প্রধানত শুষ্ক থাকতে পারে।
সোমবার সন্ধ্যা ৬টা পর্যন্ত গত ২৪ ঘণ্টায় কক্সবাজার ছাড়া দেশের কোথাও বৃষ্টি হয়নি। সোমবার দেশের সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ছিল যশোরে ৩৬ দশমিক ৭ ডিগ্রি সেলসিয়াস। ঢাকায় সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ছিল ৩৬ দশমিক ১ ডিগ্রি সেলসিয়াস।

নির্বাচনের ৪২ দিন আগে সংসদ ভেঙে দিতে রিট
ঢাকা অফিস
নির্বাচনের ৪২ দিন আগে দশম জাতীয় সংসদ ভেঙে দিয়ে বিশেষ ব্যবস্থায় তত্বাবধায়ক সরকার গঠনের নির্দেশনা চেয়ে হাইকোর্টে একটি রিট করা হয়েছে। ১ অক্টোবর, সোমবার আইনজীবী ইউনুছ আলী আকন্দ সুপ্রিম কোর্টের সংশ্লিষ্ট শাখায় রিট আবেদন করেন। রিট দায়েরের পর ইউনুছ আলী আকন্দ জানান, সংবিধানে নির্বাচনকালীন সরকার বলতে কিছু নেই। জুডিশিয়ারির বিশেষ ক্ষমতা ও সংবিধানের ১০২ অনুচ্ছেদ অনুযায়ী এ বিষয়ে নির্দেশনা চেয়ে তিনি রিট করেছেন।
হাইকোর্ট তার বিশেষ ক্ষমতাবলে সংসদ নির্বাচনের আগে এ রকম একটি নির্দেশনা দিতে পারেন বলেও জানান ইউনুছ আলী আকন্দ।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here