সকল জাতীয় সংবাদ

0
42

দিঘলিয়া এম এ মজিদ ডিগ্রি কলেজসহ সরকারি হলো আরও ১৪ কলেজ
খুলনাঞ্চল রিপোর্ট
নতুন করে দেশের আরও ১৪টি বেসরকারি কলেজকে সরকারি করা হয়েছে। এ বিষয়ে গতকাল বুধবার প্রজ্ঞাপন জারি করেছে শিক্ষা মন্ত্রণালয়। ‘সরকারিকৃত কলেজশিক্ষক ও কর্মচারী আত্তীকরণ বিধিমালা-২০১৮’ এর আলোকে কলেজগুলো সরকারি করা হয়েছে বলে প্রজ্ঞাপনে উল্লেখ করা হয়েছে।
সরকারি হওয়া কলেজগুলো হচ্ছে- খুলনার দিঘলিয়া উপজেলার এম এ মজিদ ডিগ্রি কলেজ, যশোরের বাঘারপাড়া শহীদ সিরাজুদ্দীন হোসেন মহাবিদ্যালয়, কুষ্টিয়ার দৌলতপুর উপজেলার শেখ ফজিলাতুন্নেছা মুজিব মহিলা কলেজ, কুষ্টিয়ার ভেড়ামারা মহিলা কলেজ, ফরিদপুরের সালথা কলেজ, নেত্রকোনার আটপাড়া উপজেলার তেলিগাতী ডিগ্রি কলেজ, ময়মনসিংহের ঈশ্বরগঞ্জ ডিগ্রি কলেজ, নোয়াখালীর সুবর্ণচরের সৈকত ডিগ্রি কলেজ, রাঙামাটির রাজস্থলী কলেজ, সুনামগঞ্জের তাহিরপুর উপজেলার বাদাঘাট ডিগ্রি কলেজ, রাজশাহীর চারঘাট উপজেলার সরদহ মহাবিদ্যালয়, সিরাজগঞ্জের চৌহালী উপজেলার চৌহালী ডিগ্রি কলেজ, সিরাজগঞ্জের তাড়াশ উপজেলার বঙ্গমাতা শেখ ফজিলাতুন্নেছা মুজিব আইডিয়াল কলেজ এবং গাইবান্ধার গোবিন্দগঞ্জ কলেজ।
এ নিয়ে এখন দেশে সরকারি কলেজ ও সমমানের প্রতিষ্ঠানের সংখ্যা ছয় শ ছাড়িয়ে গেছে। সরকারি হওয়া কলেজগুলোর শিক্ষকদের পদমর্যাদা, বদলি ও পদোন্নতি বিষয়গুলো নির্ধারণ করা হবে নতুন বিধিমালা অনুযায়ী।

সংসদে শীর্ষ ১০০ ঋণখেলাপির তালিকা দিলেন অর্থমন্ত্রী
খুলনাঞ্চল রিপোর্ট
জাতীয় সংসদকে অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত জানিয়েছেন, দেশে বর্তমানে ঋণখেলাপির সংখ্যা ২ লাখ ৩০ হাজার ৬৫৮ জন। এ ঋণখেলাপিদের কাছ থেকে অনাদায়ী অর্থের পরিমাণ ১ লাখ ৩১ হাজার ৬৬৬ কোটি ১৬ লাখ টাকা।
বাংলাদেশ ব্যাংকের সিআইবি (ঋণ তথ্য ব্যুরো) ডাটাবেজে সংরক্ষিত গত জুন পর্যন্ত তথ্যানুযায়ী এই ঋণখেলাপির সংখ্যা জানিয়ে মন্ত্রী ১০০ শীর্ষ ঋণখেলাপির তালিকাও প্রকাশ করেছেন।
গতকাল বুধবার বিকেলে জাতীয় সংসদ অধিবেশনে প্রশ্নোত্তর পর্বে আওয়ামী লীগ দলীয় সংরক্ষিত সংসদ সদস্য বেগম পিনু খানের প্রশ্নের জবাবে বক্তৃতা করছিলেন অর্থমন্ত্রী।
১০০ ঋণখেলাপির তালিকাসংসদে দেওয়া অর্থমন্ত্রীর তালিকা অনুযায়ী শীর্ষ ১০০ ঋণখেলাপির মধ্যে রয়েছে মোহাম্মদ ইলিয়াস ব্রাদার্স প্রাইভেট লিমিটেড, কোয়ান্টাম পাওয়ার সিস্টেম লি., ম্যাক্স শিপিং মিলস, রাবেয়া ভেজিটেবল ওয়েল ইন্ডাট্রিজ, রাইজিং স্টিল মিল, ঢাকা ট্রেডিং হাউজ, বেনেটেক্স ইন্ডাস্ট্রিজ, আনোয়ারা শিপিং মিলস, ক্রিসেন্ট লেদার প্রোডাক্টস, ইয়াসির এন্টার প্রাইজ, চৌধুরী নিটওয়ার, সিদ্দিক ট্রেড, রুপালী কম্পোজিট লেদার ওয়ার, আলফা কম্পোজিট টয়েলস হলমার্ক ফ্যাশন লিমিটেড, মুন্নু ফেব্রিক্স, ফেয়ার ইয়ার্ন প্রসেসিং লিমিটেড, ফেয়ার ট্রেড ফেব্রিক্স, শাহরিজ কম্পোজিট টয়েল লিমিটেড, ম্যাক ইন্টারন্যাশনাল, সুরুজ মিয়া শিপিং মিলস, প্যাসিফিক বাংলাদেশ টেলিকম লিমিটেড, সালেহ কার্পেট মিল, পদ্মা পলি কটন নিট ফেব্রিক্স, এ কে স্টিলের নাম।

চকরিয়ায় সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত ৪
খুলনাঞ্চল রিপোর্ট
কক্সবাজারের চকরিয়ায় সড়ক দুর্ঘটনায় সাতজন নিহতের একদিন পরই টমটম ও কাভার্ডভ্যানের মুখোমুখি সংঘর্ষে চারজন নিহত ও আরও পাঁচজন আহত হয়েছেন। গতকাল বুধবার সকাল সাড়ের ১০টার দিকে কক্সবাজার-চট্টগ্রাম মহাসড়কে হারবাংয়ে ইনানী এলাকায় এ দুর্ঘটনা ঘটে।
নিহতরা হলেন- চকরিয়ায় হারবাং ৪নম্বর ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সভাপতি আবু তাহের (৫০), হারবাং মুসলিমপাড়া এলাকার আবদুল সাত্তারের ছেলে তাজউদ্দিন (২৫)। তবে নিহত এক নারী (৪৭) ও তার মেয়ের (৮) পরিচয় জানা যায়নি।
চকরিয়া থানার উপ-পরিদর্শক সুকান্ত চৌধুরী বলেন, খবর পেয়ে চকরিয়া থানা পুলিশ এবং ফায়ার সার্ভিসের সদস্যরা ঘটনাস্থলে পৌঁছে আহতদের উদ্ধার করে। এরপর আহতদের চকরিয়া উপজেলা স্বাস্থ্যকেন্দ্রে ভর্তি করা হয়।
চিরিঙ্গা হাইওয়ে পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ সার্জেন্ট নুরে আলম বলেন, দুর্ঘটনাকবলিত কাভার্ডভ্যান ও টমটম জব্দ করা হয়েছে। নিহতদের লাশ পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে।

ফের বিক্ষোভে কোটা আন্দোলনকারীরা
ঢাকা অফিস
সরকারি চাকরিতে কোটা সংস্কারের প্রজ্ঞাপন না দিয়ে ৪০তম বিসিএস পরীক্ষার বিজ্ঞপ্তি প্রকাশের প্রতিবাদে বিক্ষোভ করেছেন আন্দোলনকারীরা। বুধবার ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় এলাকায় কোটা সংস্কারসহ তিন দফা দাবিতে শিক্ষার্থীরা বিক্ষোভ করেন। সেখানে তারা দাবি না মানা পর্যন্ত আন্দোলন চালিয়ে যাওয়ার ঘোষণা দেন।
গতকাল বুধবার সকাল সাড়ে ১০টায় ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সায়েন্স লাইব্রেরি থেকে বিক্ষোভ মিছিল বের হয়। বিক্ষোভ মিছিলটি টিএসসি হয়ে শাহবাগের পাবলিক লাইব্রেরির সামনে এসে শেষ হয়। এরপর তারা আবার মিছিল বের করেন। মিছিল বিশ্ববিদ্যালয়ের কলাভবন, ব্যবসায় শিক্ষা অনুষদ, মুহসীন হল, ভিসি চত্বর হয়ে টিএসসির রাজু ভাস্কর্যের সামনে সংক্ষিপ্ত সমাবেশ করে।
সমাবেশে বাংলাদেশ সাধারণ ছাত্র অধিকার সংরক্ষণ পরিষদের যুগ্ম আহŸায়ক নুরুল হক বলেন, কোটা সংস্কার যৌক্তিক দাবি সত্তে¡ও এই আন্দোলনে ছাত্রদের ওপর হামলা করা হয়েছে এবং মামলা দেয়া হয়েছে। আমরা কোটা বাতিল চাইনি। প্রধানমন্ত্রী কোটা বাতিলের ঘোষণা দিয়েছেন। প্রধানমন্ত্রী চাইলে কোটা বাতিল করতে পারেন। তবে কোটা সংস্কার করলে পাঁচ দফার আলোকে করতে হবে।
দাবিগুলো হচ্ছে- ৫ দফার আলোকে যৌক্তিক কোটা সংস্কার করে প্রজ্ঞাপন জারি, সব মিথ্যা মামলা প্রত্যাহার এবং আন্দোলনে হামলাকারীদের উপযুক্ত বিচার দাবি।

খুনের পর স্ত্রীর লাশ পুড়িয়ে ফেলেন যুবলীগ নেতা সেলিম
খুলনাঞ্চল রিপোর্ট
স্ত্রীকে হত্যা করে তার লাশ পুড়িয়ে ফেলার কথা স্বীকার করেছেন সাভার যুবলীগের সাবেক সভাপতি সেলিম মÐল। মানিকগঞ্জের পুলিশ সুপার রিফাত রহমান শামীম গতকাল বুধবার বিকেলে তার কার্যালয়ে সংবাদ সম্মেলনে এ তথ্য জানান।
পুলিশ সুপার রিফাত রহমান শামীম জানান, গত ৩ আগস্ট জেলার সিংগাইর উপজেলার বায়রা ইউনিয়নের শরতপুর গ্রাম থেকে অজ্ঞাত নারীর লাশ উদ্ধার করে সিংগাইর পুলিশ। লাশটির ৯০ শতাংশ পোড়া ছিল। এ ব্যাপারে পুলিশ সিংগাইর থানায় হত্যা মামলা করে। প্রথমে লাশের পরিচয় না পেয়ে ও ঘটনা সম্পর্কে কোনো তথ্য না থাকায় মামলায় অজ্ঞাত ব্যক্তিদের আসামি করা হয়। অজ্ঞাতনামা লাশটি নিয়ে জেলা পুলিশ সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ও সারা বাংলাদেশের পুলিশদের মাধ্যমে লাশটির পরিচয় জানার চেষ্টা চালায়।
তিনি আরো জানান, ১৯ আগস্ট নিহতের পরিবার আলামত দেখে লাশটি সনাক্ত করে। ১৭ দিন পর লাশের পরিচয় পেয়ে পুলিশ ১৯ আগস্ট সেলিম মÐলের সাভারের বাড়িতে অভিযান চালায়। সেদিন তাকে পাওয়া না গেলেও তার ভাই জুয়েল মÐলকে আটক করে পুলিশ। তাকে আয়েশা হত্যা মামলার আসামি দেখানো হয়েছিল।
এদিকে ইতালি পালানোর সময় গত ৪ সেপ্টেম্বর রাতে মানিকগঞ্জ পুলিশের সহায়তায় অভিবাসন পুলিশ হযরত শাহজালাল আর্ন্তজাতিক বিমানবন্দর থেকে আটক করে সেলিম মÐলকে সিংগাইর থানা পুলিশের কাছে হস্তান্তর করে। সিংগাইর থানা পুলিশ তাকে একটি হত্যা মামলায় গ্রেপ্তার দেখিয়ে মানিকগঞ্জের মুখ্য বিচারিক হাকিমের কাছে হাজির করে রিমান্ড আবেদন জানায়। আদালত রিমান্ড মঞ্জুর করেন। রিমান্ডের চতুর্থ দিন মানিকগঞ্জের মুখ্য বিচারিক হাকিমের আদালতে স্ত্রীকে হত্যার দায় স্বীকার করেন সেলিম।
সেলিম মÐল আদালতকে জানান, নিহত আয়েশা আক্তার বকুল তার দ্বিতীয় স্ত্রী ছিল। অনেক দিন ধরে তাদের মধ্যে পারিবারিক কলহ চলছিল। হত্যার দিন রাতে তাদের মধ্যে তুমুল ঝগড়া হয়। ঝগড়ার একপর্যায়ে স্ত্রীকে হত্যা করেন সেলিম। এরপর বিছানার চাদর দিয়ে লাশ মুড়িয়ে সহযোগীদের নিয়ে নিজস্ব প্রাইভেটকারে করে সিংগাইর উপজেলার বায়রা ইউনিয়নের জামালপুর এলাকায় যান। সেখানে পেট্রোল দিয়ে লাশটি পুড়িয়ে ফেলা হয়।
সেলিম মÐল আরো জানান, লাশটি পোড়ানোর সময় ফজরের আজান দিচ্ছিল। এসময় তারা দ্রæত ঘটনাস্থল থেকে পালিয়ে যায়।
জানা যায়, সেলিম মÐল ও তার ভাই মহসিন মÐল এবং জুয়েল মÐলের নামে তিনটি শটগানের লাইসেন্স আছে। এ সব কারণে তাদের বিরুদ্ধে কেউ কথা বলার সাহস পেত না। আয়শা হত্যার ঘটনায় স¤প্রতি জুয়েল মÐলকে শটগানসহ গ্রেপ্তার করে পুলিশ।

স্বামীর লাশ রেখে বিমানে উঠলেন হতভাগিনী স্ত্রী
খুলনাঞ্চল ডেস্ক
কাকডাকা ভোরে জেদ্দা বিমানবন্দরে সস্ত্রীক বসে আছেন নওগাঁ জেলার মহাদেবপুরের মো. আব্দুল হামিদ। পবিত্র হজ পালন শেষে বুধবার সকাল সোয়া ৭টায় জেদ্দা বাদশাহ আব্দুল আজিজ বিমানবন্দর থেকে সৌদি এয়ারলাইন্সে (এসভি ৩৮৫২) তাদের দেশে ফেরার কথা। এক মাসেরও বেশি সময় পর স্বজনদের মাঝে ফেরার আনন্দে দু’জনের চেহারাতেই খুশির ঝিলিক। সৌদি এয়ারলাইন্সের কাউন্টার থেকে জমজমের পানি সংগ্রহ করে তারা বাংলাদেশ প্লাজায় চেক ইন এর অপেক্ষা করতে থাকেন।
চেক ইনের ডাক পড়লে সামনে এগিয়ে যেতে থাকেন মো. আব্দুল হামিদ। হঠাৎ করে দাঁড়ানো থেকে মাটিতে ধপাস করে পড়ে যান। মাথা ফেটে যায়। ফিনকি দিয়ে রক্ত বের হতে থাকে। এ সময় হজ অফিস জেদ্দায় কর্মরত চিকিৎসক ছুটে আসেন। পরীক্ষার পর চিকিৎসক মো. আব্দুল হামিদকে মৃত ঘোষণা করেন। এ সময় স্ত্রীর আহাজারিতে বিমানবন্দর এলাকা ভারি হয়ে ওঠে।
জেদ্দা হজ টার্মিনালে কর্তব্যরত কর্মকর্তা কবীর আল-মামুন এ করুণ মৃত্যুর প্রত্যক্ষদর্শী। তিনি বলেন, দু’জনের একসঙ্গে দেশে ফেরার কথা থাকলেও শেষ পর্যন্ত স্ত্রী একাই চলে যান। পরে ফ্লাইট পেতে সমস্যা হবে জানালে মো. আব্দুল হামিদের স্ত্রী একাই দেশে ফিরে যান। যদিও তাৎক্ষণিকভাবে মরহুম আব্দুল হামিদের স্ত্রীর নাম জানাতে পারেননি ওই কর্মকর্তা। চলতি বছর এ নিয়ে ১২৩ জন হজযাত্রীর মৃত্যু হয়েছে। এরমধ্যে ১০২ জন পুরুষ ও ২১ জন নারী।

 

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here